খেলা

২১ সালের চ্যাম্পিয়নস ট্রফি ও ২৩ সালের ওয়ানডে বিশ্বকাপ হবে ভারতে 

ক্রীড়া ডেস্ক: চ্যাম্পিয়নস ট্রফির ২০২১ সালের আসর এবং ছেলেদের ২০২৩ সালের ওয়ানডে বিশ্বকাপ ভারতে হবে বলে নিশ্চিত করেছেন আইসিসির প্রধান নির্বাহি ডেভ রিচার্ডসন। এরআগে কর না দেওয়ার কারণে ভারতকে ওই দুই বৈশ্বিস আসর থেকে বঞ্চিত করা হবে বলে হুশিয়ারি করে ক্রিকেটের সর্বোচ্চ সংস্থা। তবে ওই কারণে চ্যাম্পিয়নস ট্রফি ও বিশ্বকাপ আয়োজনে ভারতের বাধা নেই বলে নিশ্চিত করা হয়েছে।

কয়েকমাস আগে ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ডকে (বিসিসিআই) আইসিসি জানায়, ২৩ মিলিয়ন ডলারের ক্ষতিপূরণ দিতে হবে তাদের। কারণ ২০১৬ টি-২০ বিশ্বকাপের সময় ভারত আইসিসিকে ওই কর দিতে নারাজ ছিল। দেশটির রাজ্য সরকার বা কেন্দ্র কর বিষয়ে ছাড় দেয়নি। তাই ওই ক্ষতিপূরণ চাই আইসিসি। ২০১৮ সালের মধ্যেই ওই অর্থ দিতে বলা হয় ভারতীয় বোর্ডকে।

তবে তা নিয়ে আর কোন সমস্যা নেই উল্লেখ করে ডেভ রিচার্ডসন জানিয়েছেন, ‘আমাদের জন্য কর থেকে অর্থ উপার্জনটা খুব গুরুত্বপূর্ণ। তা না হলে আমরা তহবিল গঠন করতে পারবো না। আর অর্থ না আসলে ওয়েস্ট ইন্ডিজের মতো দেশ যারা ক্রিকেট থেকে খুব বেশি অর্থ উপার্জন করতে পারে না তাদেরকে সহায়তা দিতে পারবো না।

ক্রিকেট বিশ্বকাপের আগামী আসর নিয়ে তিনি বলেন, ‘তবে করের কারণে ভারতের কাছ থেকে বিশ্বকাপ আয়োজনের অধিকার নিয়ে নেওয়ার কোন ইচ্ছা আমাদের নেই। আমাদের সামনে এখনও অনেক সময় আছে। আমরা আশা করছি তাদের থেকে শেষ দিকে হলেও আমরা করটা পেয়ে যাবো।’

এ সময় তিনি ২০২০ সালের টি-২০ বিশ্বকাপে ভারত-পাকিস্তান একই গ্রুপে না পড়ার বিষয়টি নিয়েও কথা বলেন, ‘আমরা ভারত-পাকিস্তানকে একই গ্রুপে ফেলবার কোন উপায় খুঁজে পায়নি। কারণ আগামী আসরের গ্রুপ পর্ব নির্ধারণ করা হয়েছে র‌্যাংকিংয়ের ভিত্তিতে। আর তারা এক ও দুইয়ে থাকায় দুই গ্রুপে পড়েছে। তবে আশা করছি সেমিফাইনালে তারা মুখোমুখি হবে।’
বরেন্দ্র বার্তা/ নাসি

Close