মোহনপুরশিরোনাম

কোন সিন্ডিকেট নয়, প্রকৃত কৃষকের কাছ খেকে ধান ক্রয় করুন: রবিউল ইসলাম বাবু

নিজস্ব প্রতিবেদক: কৃষকের নিকট থেকে ধান ক্রয় করতে মোহনপুর উপজেলা নির্বার্হী অফিসারকে অনুরোধ জানিয়েছেন আওয়ামী লীগের নেতৃবৃন্দ। আজ দুপুরে রাজশাহী জেলা কৃষক লীগের সভাপতি মোঃ রবিউল ইসলাম বাবুর নের্তৃত্বে একটি দল মোহনপুর উপজেলা নির্বার্হী অফিসার মো. সানওয়ার হোসেনের কার্যালয়ে সাক্ষাত করেন। এসময় নেতৃবৃন্দ অভিযোগ করেন বলেন, উপজেলায় কৃষকরা তাদের ধান বিক্রি করতে পারছেন, এখানে উপজেলার বাইরে থেকে কেনা ধান সিন্ডিকেটের মাধ্যমে অসাধু ব্যবসায়ীরা ধান বিক্রয় করছে। এখানে প্রকৃত কৃষকরা অধিকার বঞ্চিত হচ্ছে।

জেলা মহিলা আওয়ামীলীগের  সহসভাপতি রোখসানা মেহবুব চপলা অভিযোগ করে বলেন, মোহনপুর উপজেলায় মূলত আঠাশ ও জিরা দুই ধরনের ধান হয়।কিন্তু গুদামে মোটা জাতের ধান দেখা গেছে ।এখানে অনিয়ম হয়েছে বলে দাবী করেন তিনি। উপজেলা খাদ্য কর্মকর্তা মোহাম্মদ আলী ও গোডাইন ইনচার্জ আব্দুর রহিম কর্মস্থলে নাথাকায় সাথে মোবাইলে যোগাযোগ করলে এসব অভিযোগ অস্বীকার করেন।

মোহনপুর উপজেলা নির্বার্হী অফিসার মো. সানওয়ার হোসেন বলেন,সংশ্লিষ্টদের সঠিক নিয়মে ধান ক্রয়ের জন্য নির্দেশ দিয়েছি। তবে কোন ধরনের অনিয়ম যেন নাহয় সে বিষয়ে ব্যবস্থা নেয়ার আশ্বাস দেন তিনি।

উল্লেখ্য নেতৃবৃন্দ গোডাউন পরিদর্শনে গিয়ে কোন কর্মকর্তাকে পাননি।তবে বাইরে পড়ে থাকা ধান তারা সংগ্রহ করে আনেন। ধান গুলো মোটা জাতের ধান, এধান মোহনপুর উপজেলায় উৎপাদিত ধান নয় বলে দাবী করেন তারা।

এমসয় উপস্থিত ছিলেন জেলা মহিলা আওয়ামীলীগের  সহসভাপতি রোখসানা মেহবুব চপলা, শ্রমিক লীগের সাধারণ সম্পাদক সম্পাদক জাহাঙ্গীর আলম মিলন, ধুরইল ইউনিয়ন কৃষক লীগের সাবেক সভাপতি মোঃ গাজী মিয়া, সাবেক সহসভাপতি ইসরায়েল হোসেন প্রমূখ।বরেন্দ্র বার্তা/হাপি

Close