উন্নয়ন বার্তামহানগর

‘তামাকমুক্ত ঘোষণা’ শীর্ষক ওয়ার্ডভিত্তিক ক্যাম্পেইন

নিজস্ব প্রতিবেদক: রাজশাহী সিটি কর্পোরেশন (রাসিক) বাংলাদেশ তথা বিশ্ব দরবারে ক্লিন, গ্রীন, এডুকেশন সর্বোপরি হেলদি সিটি হিসেবে জায়গা করে নিয়েছে। এজন্য সবুজের সমারোহে সুশোভিত আমাদের এই সুন্দর নগরীর পাবলিক প্লেসগুলো শতভাগ ধূমপানমুক্ত করা জরুরি। আমাদের মনে রাখতে হবে- ধূমপানমুক্ত নগরী গড়ে তোলা ছাড়া সত্যিকারের হেলদি সিটি গড়া সম্ভব নয়। আজ সোমবার রাজশাহী সিটি কর্পোরেশনের ১২ নং ও ২০ নং ওয়ার্ড ‘তামাকমুক্ত ঘোষণা’ শীর্ষক পৃথক ক্যাম্পেইন কর্মসূচিতে বক্তারা এসব কথা বলেন।

সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা গেছে, মানবাধিকার ও উন্নয়ন সংস্থা ‘এ্যাসোসিয়েশন ফর কম্যুনিটি ডেভেলপমেন্টড়-এসিডি’ ও এন্টি ট্যোবাকো মিডিয়া এলায়েন্স-আত্মা’র উদ্যোগে এবং ১২ নং ওয়ার্ড কাউন্সিলরের আয়োজনে বেলা ১১টার দিকে ১২ নং ওয়ার্ডে এ কর্মসূচির আয়োজন করা হয়। কর্মসূচি পালনে সহযোগিতা করছে ‘ক্যাম্পেইন ফর টোব্যাকো ফ্রি কিডস-সিটিএফকে’।

সিটি কর্পোরেশনের প্যানেল মেয়র-১ ও ১২ নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর সরিফুল ইসলাম বাবু এবং এসিডি’র প্রোগ্রাম ম্যানেজার মো. শাহীনুর রহমানের নেতৃত্বে ওয়ার্ড কার্যালয়ের সামনে থেকে ক্যাম্পেইনটি শুরু হয়। ক্যাম্পেইন শুরুর আগে ১২ নং ওয়ার্ড কাউন্সিলরের কার্যালয়ে এসিডি’র এডভোকেসি অফিসার মো. শরিফুল ইসলাম শামীমের উপস্থাপনায় অনুষ্ঠিত হয় সংক্ষিপ্ত আলোচনা সভা। প্রধান অতিথির বক্তব্যে অনুষ্ঠানে ওয়ার্ড কাউন্সিলর সরিফুল ইসলাম বাবু বলেন, বিশ্বের অনেক উন্নত দেশের শহরগুলোতে প্রকাশ্যে পাবলিক প্লেসে কেউ ধূমপান করতে পারে না। মাননীয় মেয়র  মহোদয়ের প্রচেষ্টায় আমরাও রাজশাহী সিটি কর্পোরেশনকে ধূমপানমুক্ত করার উদ্যোগ নেব। এসময় পরিস্কার-পরিচ্ছন্ন ও স্বাস্থ্যসম্মত নগরী গড়তে তিনি নগরবাসীর সহযোগিতা কামনা করেন।

আলোচনা অনুষ্ঠানের পরে ক্যাম্পেইন প্রোগ্রামটি ১২ নং ওয়ার্ডের প্রধান প্রধান সড়ক, দোকানপাট ও বাজার প্রদক্ষিণ করে তামাকের ক্ষতিকর বিষয় সম্পর্কে জনসাধারণকে অবহিত করে। এসময় ১২ নং ওয়ার্ডে অবস্থিত বিভিন্ন তামাকের দোকান থেকে তামাক কোম্পানিগুলোর অবৈধ ও আইন বহির্ভুত বিজ্ঞাপন অপসারণ করা হয়। এসময় খাবার হোটেলগুলোতে সাইনেজ টাঙ্গানো এবং তামাকমুক্ত নগরী গড়ার পক্ষে জনসাধারণের মাঝে লিফলেট বিতরণ করা হয়। ক্যাম্পেইনে ধূমপান ও তামাকজাত দ্রব্য ব্যবহার (নিয়ন্ত্রণ) আইন সম্পর্কে জনগণকে অবহিত করার পাশাপাশি পাবলিক প্লেসে ধূমপান করলে ধূমপায়ীর আশেপাশে যারা অবস্থান করে তারাও যে সমান স্বাস্থ্যহানির মধ্যে পড়ে সে বিষয়ে জনসাধারণকে অবহিত করা হয়।

এদিকে সোমবার বিকাল সাড়ে ৫টার দিকে ২০ নং ওয়ার্ড ‘তামাকমুক্ত ঘোষণা’ শীর্ষক ক্যাম্পেইন অনুষ্ঠিত হয়েছে। ক্যাম্পেইন শুরু আগে একইভাবে ২০ নং ওয়ার্ড কাউন্সিলরের কার্যালয়ে এক আলোচনা সভার আয়োজন করা হয়। পরে ওয়ার্ড কাউন্সিলর মো. রবিউল ইসলাম সরকারের নেতৃত্বে কাউন্সিলর কার্যালয়ের সামনে থেকে ক্যাম্পেইনটি শুরু হয়। ক্যাম্পেইনটি ওয়ার্ডের গুরুত্বপূর্ণ সড়ক ও বাজার প্রদক্ষিণকালে তামাকপণ্যের দোকান থেকে অবৈধ বিজ্ঞাপন, লিফলেট ও পুরস্কার- প্রণোদনা অপসারণ করা হয়।

ক্যাম্পেইনে অন্যদের মধ্যে ‘এন্টি টোব্যাকো মিডিয়া এলায়েন্স- আত্মা’র রাজশাহীর সদস্য জিয়াউল হক, এসিডি’র মিডিয়া ম্যানেজার আমজাদ হোসেন শিমুল, প্রোগ্রাম অফিসার কৃষ্ণা রাণী বিশ্বাস ও তুহিন ইসলাম প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন। উল্লেখ্য, ২০২০ সালের মধ্যে রাজশাহী মহানগরীর পাবলিক প্লেসগুলো শতভাগ ধূমপানমুক্ত করার লক্ষ্যে ওয়ার্ডভিত্তিক এ ক্যাম্পেইন প্রোগ্রামের আয়োজন করা হয়।
বরেন্দ্র বার্তা/ নাসি

Close