অর্থ ও বাণিজ্যমহানগরশিরোনাম-২

উদ্যোক্তাদের ঋণ ও সহায়তা প্রদান করে উৎসাহিত করার আহবান মেয়র লিটনের

নিজস্ব প্রতিবেদক: রাজশাহী সিটি কর্পোরেশনের মাননীয় মেয়র এ.এইচ.এম খায়রুজ্জামান লিটন বলেছেন, বর্তমান সরকার উদ্যোক্তা সৃষ্টি এবং তাদের দক্ষতা উন্নয়নে কাজ করে চলেছে। এখন সরকারি ও বেসরকারি উদ্যোগে উদ্যোক্তাদের স্বল্প সুদে ঋণ প্রদানসহ অন্যান্য সহযোগিতার মাধ্যমে তাদের উৎসাহিত করতে হবে।
আজ রোববার বেলা ১১টায় রাজশাহী জেলা প্রশাসকের সম্মেলন কক্ষে প্রধানমন্ত্রী কার্যালয়ের বাংলাদেশ বিনিয়োগ উন্নয়ন কর্তৃপক্ষের উদ্যোক্তা সৃষ্টি ও দক্ষতা উন্নয়ন প্রকল্পের আওতায় উদ্যোক্তাদের প্রশিক্ষণ কার্যক্রমের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।
মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনা সারাদেশের ব্যাপক উন্নয়ন করছেন উল্লেখ করে রাসিক মেয়র বলেন, সারাদেশে ব্যাপক উন্নয়ন হলেও রাজশাহী কিছুটা পিছিয়ে আছে। রাজশাহীতে কৃষি, মৎস ও প্রাণি সম্পদে বিপ্লব ঘটেছে। এসবক্ষেত্রে আমরা অনেক এগিয়ে থাকলেও শিল্পায়নে পিছিয়ে আছি। বিগত সময়ে মেয়র থাকাকালে শিল্পমন্ত্রী, অর্থমন্ত্রীসহ ঢাকার ব্যবসায়ী নেতৃবৃন্দদের রাজশাহী এনে বিনিয়োগের উদ্যোগ গ্রহণ করেছিলাম। কিন্তু পরবর্তীতে কাজ করার সুযোগ না পাওয়ায় সেটি থমকে যায়। রাজশাহীতে বিনিয়োগ আগ্রহী করতে আবারো উদ্যোগ গ্রহণ করা হচ্ছে। রাজশাহী সিটি কর্পোরেশনের উদ্যোগে ভোকেশনাল ইনস্টিটিউট প্রতিষ্ঠা করে উদ্যোক্তা তৈরি করার পরিকল্পনা রয়েছে।
সিটি মেয়র খায়রুজ্জামান লিটন আরো বলেন, রাজশাহীর জন্য মাননীয় প্রধানমন্ত্রী বিসিক ফেজ-২, বিশেষ অর্থনৈতিক জোন ও চামড়া শিল্পপার্ক গড়ে তোলার অনুমোদন দিয়েছেন। বিসিক পেজ-২ এর কাজ শুরু হতে যাচ্ছে। বিসিক ফেজ-২ এ প্রকৃত উদ্যোক্তাদের প্লট বরাদ্দ দেওয়া হবে। আর চামড়া শিল্পপার্কের জন্য জমি অধিগ্রহণ কাজ শুরু হতে যাচ্ছে।
তিনি বলেন, চাঁপাইনবাবগঞ্জের ভোলাহাটসহ রাজশাহী অঞ্চলে বিপুল পরিমাণ রেশম সূতা উৎপাদনের অনুকূল পরিবেশ রয়েছে। এই সুযোগকে কাজে লাগতে হবে। রেশম শিল্পকে হারিয়ে যাওয়া থেকে বাঁচাতে স্বল্প সুদে ঋণ প্রদান করতে হবে।
রাজশাহী জেলা প্রশাসক মোঃ হামিদুল হকের সভাপতিত্বে উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি ছিলেন প্রধানমন্ত্রী কার্যালয়ের বিডা এর রাজশাহী বিভাগের পরিচালক একেএম বেনজামিন রিয়াজী। সঞ্চালনায় বিডা এর উদ্যোক্তা সৃষ্টি ও দক্ষতা উন্নয়ন প্রকল্পের প্রশিক্ষক জামিলা আফসারী আলম। অনুষ্ঠানে মেয়র খায়রুজ্জামান লিটন ও জেলা প্রশাসক হামিদুল হককে সম্মাননা স্মারক প্রদান করা হয়। বরেন্দ্র বার্তা/অপস

Close