আন্তর্জাতিকশিরোনাম

খুনি রাশেদ চৌধুরীর মামলার কাগজ চেয়েছে যুক্তরাষ্ট্র

আন্তর্জাতিক ডেস্ক: প্রথমবারের মতো বঙ্গবন্ধুর খুনি রাশেদ চৌধুরীর মামলার কাগজপত্র চেয়েছে যুক্তরাষ্ট্র। যুক্তরাষ্ট্রের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের ভারপ্রাপ্ত অ্যাসিস্ট্যান্ট সেক্রেটারি এলিস ওয়েলসের সঙ্গে বৈঠকের পরে সাংবাদিকদের এ কথা জানিয়েছেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী এ কে আব্দুল মোমেন।
মঙ্গলবার (৫ নভেম্বর) সন্ধ্যায় পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ে এ বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়।
মন্ত্রী বলেন, ’আমরা বলেছি আমরা আইনের শাসন চাই, সুশাসন চাই এবং এটা আপনারাও চান। আমাদের এখানে একটা ঝামেলা আছে। আমাদের একজন পলাতক আসামি আপনাদের দেশে আছে। আমরা চাই তাকে ফেরত পাঠানো হোক। প্রত্যুত্তরে তারা বলেছে, তোমরা যে বিচার করেছো তার কাগজপত্র দাও।’
যুক্তরাষ্ট্র রাশেদ চৌধুরীর বিষয়ে এই প্রথম কোনও কাগজপত্র চেয়েছে কিনা জানতে চাইলে পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, হ্যাঁ। এবারই প্রথম তারা তার বিষয়ে জানতে চেয়েছে। ‘তারা বলেছে, কাগজপত্র দিলে আমরা পরীক্ষা নিরীক্ষা করে দেখবো এবং পরে (আমাদের অবস্থান) জানাবো,’ যোগ করেন তিনি।
এ বৈঠকে রোহিঙ্গা ইস্যুতেও যুক্তরাষ্ট্রের সঙ্গে আলোচনা হওয়ার কথা জানান তিনি।
মোমেন বলেন, ‘রোহিঙ্গা নিয়ে আলোচনা হয়েছে। আমরা জানিয়েছি ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি ও জাপানের প্রধানমন্ত্রী শিনজে আবে মিয়ানমারের অং সান সুচিকে বলেছেন এর সমাধান করার জন্য বলেছেন।’
তিনি বলেন, রোহিঙ্গাদের ভাসানচরে পাঠাতে সরকার যে উদ্যোগ নিয়েছে এলিস ওয়েলসের সঙ্গে সে বিষয়েও আলোচনা হয়েছে। এসময় আমরা জানিয়েছি, রোহিঙ্গাদের জোর করে সেখানে পাঠানো হবে না।
পরে যুক্তরাষ্ট্রের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের ভারপ্রাপ্ত অ্যাসিস্ট্যান্ট সেক্রেটারি এলিস ওয়েলস সাংবাদিকদের বলেন, ‘ বৈঠকে আমরা রোহিঙ্গাদের নিয়ে আলোচনা করেছি। রোহিঙ্গাদের সহায়তার জন্য আমরা সবচেয়ে বেশি অর্থ দিচ্ছি। এ সহযোগিতা অব্যাহত থাকবে।’বরেন্দ্র বার্তা/অপস

Close