সাহিত্য ও সংস্কৃতি

নগ্ন আর প্রাকৃত

শরীফ আহমেদ

শব্দের প্রাসাদ গড়েছিলাম একদিন তোমার জন্য
তুমি অনেক হাসি খুশি ছিলে সেখানে
প্রাসাদে ছিলো তোমার আমার বিশাল শয়নের ঘর
সেখানে ছিলো মনের অরণ্য ভরা অবিরাম গাছপালা
ঝোপ জঙ্গলের অগোচরে আমরা অনেক নির্জনে
খুঁজে নিতাম আমাদের নগ্ন দেহ

একদিন তুমি বললে, বড্ড একা লাগে তোমার
এই শয়নের নির্জন অরণ্যে কিছু মানুষ চাই
একা একা নাকি বাঁচে না মানুষ তাই আমরা আর থাকবো না একা
এই বেডরুমে তাই থাকতে হবে আরও মানুষ

তোমার অনেক পরিজন, বন্ধুজন, অনেক বান্ধব
সবাইকে তুমি নিয়ে এলে আমাদের মাঝে
বলেছিলে, ওরা মাঝে মাঝে এসে থাকবে
কিন্তু আমি দেখলাম, ওরা তো থাকেই
খুব বেশি হলে মাঝে মাঝে চলে যায়

আমি চেয়েছিলাম স্বপ্নের গভীর অরণ্যের মতো একটা শয়নের জগৎ
শুধু আমার ভুল ছিলো আমি সেই জগতটাকে অনেক বড় করে ফেলেছিলাম
এতোটাই বড় যে- তোমার সব পরিজন, বন্ধুজন আর বান্ধব
সবার জন্য অনেক বেশি জায়গা ছিলো সেখানে

এক সময় দেখলাম আমার স্বপ্নের শয়ন জঙ্গল আবাদ করেছে কারা যেনো
সেখানে এখন সভ্যতার ছোঁয়া লেগেছে আর
এখন তুমি সেখানে নগ্ন হতে ভয় পাও কারণ নগ্নতা যে অসভ্যতা
কিন্তু তুমি ভুলে গেলে শয়নের ঘর সেটা যতো বড়ই হোক
সেটা তো শুধু নগ্ন হবার জন্যই
এখানে পরিজন, বন্ধুজন আর অনেক বান্ধব নয়
এখানে থাকবো শুধু তুমি আর আমি
এখানে থাকে শুধু নগ্ন আর প্রাকৃত নর আর নারী

Close