মহানগরশিক্ষাঙ্গন বার্তাশিরোনাম

রাজশাহীতে বসন্ত ও ভালবাসা দিবস উদযাপিত

পিছিয়ে নেই রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রেম বঞ্চিত সংঘ

নিজস্ব প্রতিবেদক: বাংলা ও ইংরেজি ক্যালেণ্ডারে তারিখে একই দিনে মেলেছে দিন দুটি উৎসব বসন্ত ও বিশ্ব ভালোবাসা দিবস। তার উপর সাপ্তাহিক ছুটির দিন হওয়ায় উৎসবে নতুন মাত্রা যোগ করেছে। ছুটির দিনে প্রিয়জনের সময় দিতে পারছেন কর্মজীবীরা। তাই অনন্দের মাত্রা যোগ হয়েছে সব বয়সী মানুষের মনে।
একদিকে বসন্ত অন্যদিখে ভালবাসা দিবসে মেতে উঠেছে সবাই। শুধু পক্ষে নয় প্রতিবাদী বিভিন্ন কর্মসূচি পালন রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রেম বঞ্চিত সংঘ। তর্ক-বিতর্ক থাকলেও যে যার মত করে পালন করছেন উৎসব গুলি।
দুটি উৎসবের অন্যতম উপকরন ফুল, শহরজুড়ে ফুলের মেলা ।
ব্যস্ত শহরের ফুলের দোকানগুলোতে বেড়েছে ক্রেতার সংখ্যা। বিকিনিকিতে বেশ খুশি ক্রেতা-বিক্রেতারা। তবে ফুলের দাম বেশি হওয়ায় অনেকেই অসন্তষ। তুবও সবাই দিচ্ছে প্রিয় মানুষকে পছন্দের ফুলটি উপহার। এদিকে, এছাড়া শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানগুলোর পক্ষ থেকে নানা আয়োজন করা হয়েছে। কোন কোন শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে পিঠা উৎসব, বর্ষ বরণে আনন্দ শোভাযাত্রা, অল্পনা অঙ্কনসহ বিভিন্ন কর্মসূচি গ্রহণ করা হয়েছে।
বসন্ত বরণে সকাল সোয়া ১০টার দিকে ‘আহা আজি এ বসন্তে এতো ফুল ফুটে এতো বাঁশি বাজে এতো পাখি গায়………’এই ব্যানারে রাজশাহী কলেজের নজরুল চত্বর থেকে একটি বর্ণাঢ্য শোভাযাত্রা বের করে। র‌্যালিটি নগরীর সোনাদিঘী, সাহেব বাজার, জিরোপয়েন্ট, মনিচত্বর প্রদক্ষিণ করে পুনরায় রাজশাহী কলেজ ক্যাম্পাসে এসে শেষ। র‌্যালিতে নেতৃত্ব দেন, রাজশাহী কলেজের অধ্যক্ষ প্রফেসর মুহা. হবিবুর রহমান।
এছাড়া বাহারি ফুলে সাজ সজ্জা করে কলেজ ক্যাম্পাসে ঘুরে বেড়াতে দেখা গেছে তরুণীদের পরনে লাল, হলুদ ও বাসন্তি রঙের শাড়ি পড়ে। কমতি নেই তরুণদের মনেও তারা বসন্তের পাঞ্জাবি পড়ে এসেছে ক্যাম্পাসে। তরুণীরা মাথায় গোলাপ, বেলি, গাঁদা জিপসি ফুলের টায়রা, কপালে টিপ, হাতে চুড়ি।
এছাড়া রাজশাহী কলেজে বসন্ত বরণ উৎসব উপলক্ষে বিভিন্ন আলপনা করা হয়েছে। এ উপলক্ষে শোভাযাত্রা শেষে কলেজ ক্যাম্পাসে সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়েছে। এছাড়াও বিকেলে বাউল সংগীত অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হবে।
রাজশাহী কলেজ অধ্যক্ষ প্রফেসর মহ. হবিবুর রহমান বলেন, বাংলাদেশ ষড়ঋতুর দেশ। প্রত্যেকটির সমান গুরুত্ব। বসন্তে নতুন উদ্যমে নতুন ভাবে এগিয়ে যাবে বাংলাদেশ।
অন্যদিকে, ভালোবাসা দিবসে প্রতিবাদী বিভিন্ন কর্মসূচি পালন করেছে রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রেম বঞ্চিত সংঘ।
বিক্ষোভ মিছিলে তাদের মুখে স্লোগান ছিলো, কেউ পাবে তো কেউ পাবে না তা হবে না তা হবে না। নষ্ট প্রেমের গদিতে আগুন জ্বালো একসাথে। শিশুর খাদ্যে কালো হাত ভেঙ্গে দাও গুড়িয়ে দাও। একসাথে পাঁচটি ৫ টি দশটি প্রেম চলবে না চলবে না।
প্রেমের নামে নষ্টামি চলবে না চলবে না।
আজ সকাল ১১টায় রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের থেকে একটি বিক্ষোভ মিছিল বের হয়ে ক্যাম্পাসের বিভিন্ন জায়গা ঘুরে লাইব্রেরীর পেছনে এসে সংক্ষিপ্ত সমাবেশ করেন তারা।
তাদের কর্মসূচির মধ্যে ছিল বিক্ষোভ মিছিল-সমাবেশ, গণস্বাক্ষর, কবিতা আবৃতি, রক্তদান কর্মসূচি ও গরিবদের মাঝে খাবার বিতরণ।বরেন্দ্র বার্তা/অপস

Close