মহানগরশিরোনাম

আরএমপির শ্রেষ্ঠ অফিসার হয়েছেন সেই দুই কব্জি হারানো সেই এসআই

নিজস্ব প্রতিবেদক: ২০১৩ সালে রাজশাহী রানিবাজার এলাকায় শিবিরের মিছিল থেকে ছোড়া বোমা ধরে দুই কব্জি হারানো সেই এসআই আরএমপির শ্রেষ্ঠ অফিসার হয়েছেন।
রাজশাহী আরএমপি ২০২০ সালে জানুয়ারি মাসের মাসিক অপরাধ সভা ও পুলিশ অফিসার দের পারফরম্যান্স এর উপর ভিত্তি করে শ্রেষ্ঠ পুরস্কার প্রধান অনুষ্ঠিত হয়। মঙ্গলবার (১৮ ফেব্রুয়ারি) বেলা ১১ টার দিকে আরএমপি সদর দপ্তর কনফারেন্স রুমে জানুয়ারি ২০২০ মাসের এ সভায় সভাপতিত্ব করেন পুলিশ কমিশনার মোঃ হুমায়ুন কবির, বিপিএম পিপিএম। অনুষ্ঠানটি কোরআন তেলাওয়াত এর মাধ্যমে শুরু হয়। আরএমপি পুলিশ কমিশনার সভার শুরুতেই পারফরম্যান্স এর উপর ভিত্তি করে শ্রেষ্ঠ উপ-পুলিশ কমিশনার, সহকারী পুলিশ কমিশনার, শ্রেষ্ঠ অফিসার, শ্রেষ্ঠ ট্রাফিক অফিসার, শ্রেষ্ঠ উদ্ধারকারী, শ্রেষ্ঠ সিটিএসবি অফিসার, শ্রেষ্ঠ কোর্ট অফিসার এবং বিশেষ পুরস্কার সম্মাননা স্মারক বিতরণ করেন। এসময় অপরাধ সভায় আরো উপস্থিত ছিলেন অতিরিক্ত পুলিশ কমিশনার (প্রশাসন) জনাব মোঃ সুজায়েত ইসলাম, অতিরিক্ত পুলিশ কমিশনার (ক্রাইম এন্ড অপারেশন) জনাব সালমা বেগম, পিপিএম-সেবা, উপ-কমিশনার (সদর) সহ অন্যান্য উর্ধ্বতন কর্মকর্তাগণ এবং থানার অফিসার ইনচার্জবৃন্দ।
এদিকে, গত ৩১ মার্চ ২০১৩ সালে রাজশাহী রানিবাজার এলাকায় শিবিরের বিক্ষোভ মিছিল থেকে পুলিশ কে লক্ষ করে হাত বোমা ধরে দুই হাতের কব্জি উড়ে যাওয়া সেই পুলিশ অফিসার এসআই মকবুল হোসেন পিপিএম রাজশাহী মেট্রোপলিটন পুলিশ জানুয়ারি মাসের শ্রেষ্ঠ অফিসার হিসাবে পুরস্কার পেয়েছেন। এসআই মকবুল হোসেন পিপিএম বর্তমান কাশিয়াডাঙ্গা থানার সেকেন্ড অফিসার হিসাবে কর্মরত আছেন।
এসআই(নিঃ)/মোঃ মকবুল হোসেন, পিপিএম, মৃত্যুর মুখ থেকে ফিরে এসেছি নিজের কর্মরত অবস্থায় অটুট থেকে। মাননীয় পুলিশ কমিশনার স্যারের নির্দেশে বর্তমান কাশিয়াডাঙ্গা থানার সেকেন্ড অফিসার হিসাবে আছি। কাশিয়াডাঙ্গা থানার অফিসার ইনচার্জ মনসুর আলী আরিফ স্যারের নির্দেশে নিজের দাইত্ব পালন করে যাচ্ছি। গত জানুয়ারি মাসে থানায় থাকা কালিন ভালো কাজের জন্য পুলিশ কমিশনার স্যার আমাকে এই শ্রেষ্ঠ্যত্বের পুরস্কার দিয়েছে। এ পুরস্কার আগামী দিনে আরো ভালো কাজ করার জন্য অনুপ্রেরণা যোগাবে বলে জানান তিনি। বরেন্দ্র বার্তা/অপস

Close