চাঁপাই নবাবগঞ্জজয়পুরহাটনওগাঁনাটোরপাবনাবগুড়ামহানগরশিরোনামসিরাজগঞ্জ

বিনম্র শ্রদ্ধায় শহীদ দিবস ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস পালিত

নিজস্ব প্রতিবেদক: একুশে ফেব্রুয়ারি বাংলাদেশের জনগণের গৌরবোজ্জ্বল একটি দিন। এটি শহীদ দিবস ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস হিসাবেও সুপরিচিত। বাঙালি জনগণের ভাষা আন্দোলনের মর্মন্তুদ ও গৌরবোজ্জ্বল স্মৃতিবিজড়িত একটি দিন হিসেবে চিহ্নিত হয়ে আছে। ১৯৫২ সালের এই দিনে (৮ ফাল্গুন, ১৩৫৮) বাংলাকে পূর্ব পাকিস্তানের অন্যতম রাষ্ট্রভাষা করার দাবিতে আন্দোলনরত ছাত্রদের ওপর পুলিশের গুলিবর্ষণে কয়েকজন তরুণ শহীদ হন। তাদের মধ্যে অন্যতম হলো রফিক,জব্বার,শফিউল,সালাম,বরকত সহ অনেকেই। তাই এ দিনটি শহীদ দিবস হিসেবে চিহ্নিত হয়ে আছে। ২০১০ খ্রিষ্টাব্দে জাতিসংঘ কর্তৃক গৃহীত সিদ্ধান্ত মোতাবেক প্রতিবছর একুশে ফেব্রুয়ারি বিশ্বব্যাপী আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস পালন করা হয়।
সারাদেশের মত রাজশাহী বিভাগের সমস্ত জেলা-উপজেলায় দিবসটি বিনম্র শ্রদ্ধায় পালিত হচ্ছে।

রাজশাহী

মহানগর:

একুশের প্রথম প্রহরে রাজশাহীর বিভিন্ন শহীদ মিনারে সর্বশ্রেণীর মানুষের ঢল নামে। ভোর পেরিয়ে সকাল হতেই নানান রং আর সুগন্ধী ফুলে ভরে ওঠে শহীদ বেদী। অমর একুশে স্মরণে বিভিন্ন রাজনৈতিক, সামাজিক, সাংস্কৃতিক ও পেশাজীবী সংগঠন প্রভাত ফেরি বের করে।
যথাযোগ্য মর্যাদা ও ভাবগাম্ভীর্যের সঙ্গে ২১ ফেব্রুয়ারি মহান শহীদ দিবস ও আর্ন্তজাতিক মাতৃভাষা দিবস উদযাপন উপলক্ষে এবার ব্যাপক প্রস্তুতি গ্রহণ করেছে জেলা প্রশাসন।
ইসলামী ফাউন্ডেশনের উদ্যোগে মহানগরের হেতেম খাঁ মসজিদে ভাষা শহীদদের রুহের মাগফেরাত কামনা করে বাদ যোহর কোরআন খানি ও মিলাদ মাহফিল অনুষ্ঠিত হবে। এছাড়া ভাষা শহীদদের প্রতি শ্রদ্ধা জানিয়ে অন্য ধর্মীয় উপাসনালয়ে সুবিধামতো সময়ে বিশেষ প্রার্থনা করা হবে।
মহানগরের সড়ক দ্বীপসমূহে ও অন্য গুরুত্বপূর্ণ স্থানসমূহে বাংলা বর্ণমালা সম্বলিত ফেস্টুন দ্বারা সজ্জিত করা হয়েছে।
সকাল থেকে রাজশাহী শিশু একাডেমিতে স্কুল, কলেজের ছাত্র-ছাত্রীদের চিত্রাঙ্কন, বাংলায় সুন্দর হাতের লেখা, ভাষার গান, দেশাত্ববোধক গান ও রচনা লিখন প্রতিযোগিতা চলছে।
শিল্পকলা একাডেমিতে বিকেলে রয়েছে, ভাষা সৈনিকদের সংবর্ধনা, আলোচনা সভা, পুরস্কার বিতরণী ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান। এছাড়া সন্ধ্যায় গণযোগাযোগ অধিদফতরের উদ্যোগে মহানগরের আলুপট্টি বঙ্গবন্ধু চত্বর, সাহেব বাজার ও লক্ষ্মীপুরসহ বিভিন্ন গুরুত্বপূর্ণ মোড়ে ভ্রাম্যমাণ চলচ্চিত্র প্রদর্শন করা হবে।
রাজশাহী মহানগর পুলিশের অতিরিক্ত উপ-কমিশনার (সদর) গোলাম রুহুল কুদ্দুস জানিয়েছেন, দিবসটি উপলক্ষে কঠোর নিরাপত্তা ব্যবস্থা গড়ে তোলা হয়েছে। পুলিশ মোতায়েনের পাশাপাশি র‌্যাব সদস্যরাও টহল দিচ্ছে।
এছাড়া গোয়েন্দা সংস্থার সদস্যরা সাদা পোশাকে কর্তব্য পালন করছেন। প্রথম প্রহর থেকে শুক্রবার সকাল পর্যন্ত নিরাপত্তার চাদরে ঢাকা ছিল রাজশাহী কলেজ শহীদ মিনার, ভুবন মোহন শহীদ মিনার ও কোর্ট শহীদ মিনার এলাকা।
অমর একুশের কর্মসূচির মধ্যে রাত ১২টা ১ মিনিটে শহীদ মিনারে পুষ্পস্তবক অর্পণ, সূর্যদয়ের সঙ্গে সঙ্গে সব সরকারি-বেসরকারি ও আধা সরকারি স্বায়ত্তশাসিত প্রতিষ্ঠানে জাতীয় পতাকা অর্ধনমিত রাখা হয়। সকালে ছিল রাজশাহী কলেজ শহীদ মিনার অভিমুখে প্রভাত ফেরি। মহানগরের বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠান, সংগঠন, সংস্থার সদস্য ও সর্বস্তরের জনগণ প্রভাত ফেরিতে অংশ নেন।

 

ভাষা শহীদদের প্রতি রাসিক মেয়র লিটনের শ্রদ্ধা
অমর একুশে ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবসের প্রথম প্রহরে রাজশাহী কলেজ শহীদ মিনারে পুষ্পস্তবক অর্পণ করে ভাষা শহীদদের প্রতি শ্রদ্ধা জানিয়েছেন রাজশাহী সিটি কর্পোরেশনের মেয়র ও মহানগর আওয়ামী লীগ সভাপতি এ.এইচ.এম খায়রুজ্জামান লিটন। ২১ ফেব্রুয়ারি দিবসের প্রথম প্রহরে রাত ১২টা ১মিনিটে শ্রদ্ধা নিবেদন করেন মেয়র। পুষ্পস্তবক অর্পনের পর শহীদদের স্মরণে এক মিনিট নীরবতা পালন করা হয়।

ভাষা শহীদদের প্রতি রাসিক মেয়র লিটনের শ্রদ্ধা
ভাষা শহীদদের প্রতি রাসিক মেয়র লিটনের শ্রদ্ধা

পুষ্পস্তবক অর্পনের সময় রাজশাহী মেট্রোপলিটন পুলিশ কমিশনার মোঃ হুমায়ুন কবির বিপিএম, পিপিএম, মেয়রপত্মী মহানগর আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি সমাজসেবী শাহীন আকতার রেনী, রাজশাহী কলেজ অধ্যক্ষ প্রফেসর হবিবুর রহমান, মহানগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ডাবলু সরকার, সহ-সভাপতি মুক্তিযোদ্ধা মীর ইকবাল, মুক্তিযোদ্ধা নওশের আলী, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক নাইমুল হুদা রানা, সাংগঠনিক সম্পাদক এ্যাড. আসলাম সরকার, আসাদুজ্জামান আজাদ, ত্রাণ ও দুযোর্গ বিষয়ক সম্পাদক ফিরোজ কবির সেন্টুসহ অন্যান্য নেতৃবৃন্দ, বাংলাদেশ ছাত্রলীগের সাবেক সহ-সভাপতি ডা. আনিকা ফারিহা জামান অর্ণা, রাসিকের ২২ নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর আব্দুল হামিদ সরকার, মহানগর স্বেচ্ছাসেবক লীগ সভাপতি ও ১৩নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর আব্দুল মমিনসহ থানা, ওয়ার্ড আওয়ামী লীগ ও সহযোগী সংগঠনর নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।
এরআগে নগরীর কুমারপাড়াস্থ মহানগর আওয়ামী লীগের কার্যালয়ের সামনে থেকে র‌্যালি নিয়ে রাজশাহী কলেজ শহীদ মিনার প্রাঙ্গনে আসেন আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীরা। সংবাদ বিজ্ঞপ্তি

বিএনপির শ্রদ্ধা নিবেদন

বিএনপির চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা ও সাবেক মেয়র মিজানুর রহমান মিনুর নেতৃত্ব দলের নেতাকর্মীরা শহীদ মিনারে ফুল দিয়ে ভাষা শহীদদের শ্রদ্ধা জানায়। এ সময় নগর বিএনপির সভাপতি ও সাবেক মেয়র মোসাদ্দেক হোসেন বুলবুল ও সাধারণ সম্পাদক শফিকুল হক মিলন উপস্থিত ছিলেন।
বিএনপির চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা ও সাবেক মেয়র মিজানুর রহমান মিনুর নেতৃত্ব দলের নেতাকর্মীরা শহীদ মিনারে ফুল দিয়ে ভাষা শহীদদের শ্রদ্ধা জানায়। এ সময় নগর বিএনপির সভাপতি ও সাবেক মেয়র মোসাদ্দেক হোসেন বুলবুল ও সাধারণ সম্পাদক শফিকুল হক মিলন উপস্থিত ছিলেন।

বাংলাদেশের ওয়ার্কার্স পার্টির শ্রদ্ধাঞ্জলী

ভুবনমোহন পার্কে শ্রদ্ধা নিবেদন করেন বাংলাদেশের ওয়ার্কার্স পার্টির নেতৃবৃন্দ। এ সময় দলটির রাজশাহী মহানগরের সভাপতি লিয়াকত আলী লিকু, সাধারণ সম্পাদক দেবাশিষ প্রামানিক দেবু, সম্পাদকমণ্ডলীর সদস্য সাদরুল ইসলামসহ বিভিন্ন পর্যায়ের নেতাকর্মীরা উপস্থিত ছিলেন।
ভুবনমোহন পার্কে শ্রদ্ধা নিবেদন করেন বাংলাদেশের ওয়ার্কার্স পার্টির নেতৃবৃন্দ। এ সময় দলটির রাজশাহী মহানগরের সভাপতি লিয়াকত আলী লিকু, সাধারণ সম্পাদক দেবাশিষ প্রামানিক দেবু, সম্পাদকমণ্ডলীর সদস্য সাদরুল ইসলামসহ বিভিন্ন পর্যায়ের নেতাকর্মীরা উপস্থিত ছিলেন।

রাজশাহী কলেজ
পরে রাজশাহী কলেজের অধ্যক্ষ প্রফেসর হবিবুর রহমানের নেতৃত্বে কলেজের শিক্ষক-শিক্ষার্থীরা শহীদ মিনারে ফুল দিয়ে ভাষা শহীদদের শ্রদ্ধা জানান। এর পর বিভিন্ন রাজনৈতিক, সামাজিক ও পেশাজীবী সংগঠনের পক্ষ থেকে শহীদ মিনার পুস্পস্তবক অর্পন করা হয়।

বাংলাদেশ ছাত্র ইউনিয়ন রাজশাহীর প্রাক্তন ছাত্র নেতাদের শ্রদ্ধাঞ্জলি
অমর একুশে ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবসের প্রথম প্রহরে রাজশাহী কলেজ শহীদ মিনারে পুষ্পস্তবক অর্পণ করে ভাষা শহীদদের প্রতি শ্রদ্ধা জানিয়েছেন বাংলাদেশ ছাত্র ইউনিয়ন রাজশাহীর প্রাক্তন ছাত্র নেতারা ।

বাংলাদেশ ছাত্র ইউনিয়ন রাজশাহীর প্রাক্তন ছাত্র নেতাদের শ্রদ্ধাঞ্জলি
বাংলাদেশ ছাত্র ইউনিয়ন রাজশাহীর প্রাক্তন ছাত্র নেতাদের শ্রদ্ধাঞ্জলি

এসময় উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ ছাত্র ইউনিয়ন রাজশাহীর ছাত্রনেতা প্রাক্তন মাহফিজুল ইসলাম লিটন, হাফিজ উদ্দিন পিন্টু, সৈয়দ মিশফাক আলী টুটুল, সুশোভন রায় পাপ্পু, তোফায়েল হোসেন তপু, দেবাশীষ সাহা, সাহেবুজ্জামান সঞ্জু, মুসা কালিমুল্লাহসহ আরো অনেকে ও তাদের পরিবার বর্গ। পুস্পস্তবক অর্পন শেষে ১ মিনিট নীরাবতা পালন শেষে সংক্ষিপ্ত বক্তব্য রাখেন প্রাক্তন ছাত্র নেতারা। তারা বলেন , শোষণহীন সমাজ প্রতিষ্ঠার জন্য লড়াই আজো চলছে, ভাষা-আন্দোলন, মুক্তিসংগ্রাম, স্বৈরাচারবিরোধী আন্দোলনের মধ্য দিয়ে স্বাধীন বাংলাদেশ প্রতিষ্ঠা হলেও সাম্যতার ভিত্তিতে সমাজ প্রতিষ্ঠিত হয়নি , সে সমাজ প্রতিষ্ঠায় নতুন প্রজন্মকে এগিয়ে আসার আহন জানান ছাত্র ইউনিয়নের প্রাক্তন নেতা-কর্মীরা। বার্তা প্রেরক: হাফিজ উদ্দিন পিন্টু

রাজশাহী বিভাগীয় কমিশনারের শ্রদ্ধাঞ্জলী
কোর্ট শহীদ মিনারে পুষ্পস্তবক অর্পণ করেন রাজশাহী বিভাগীয় কমিশনার হুমায়ুন কবীর খোন্দকার, জেলা প্রশাসক মো. হামিদুল হক, রাজশাহী রেঞ্জের উপ-মহাপুলিশ পরিদর্শক (ডিআইজি) এ কে এম হাফিজ আক্তার ও রাজশাহী পুলিশ সুপার (এসপি) মো. শহিদুল্লাহ।
রাজশাহী সাংবাদিক ইউনিয়নের শ্রদ্ধা নিবেদন
মহানগরের ভুবনমোহন শহীদ মিনারে ফুল দিয়ে শ্রদ্ধা নিবেদন করে রাজশাহী সাংবাদিক ইউনিয়ন। এ সময় বিএফইউজের সহ-সভাপতি মামুন-অর-রশিদ, রাজশাহী সাংবাদিক ইউনিয়নের সভাপতি কাজী শাহেদ সভাপতি, সহ-সভাপতি শরীফ সুমন,

রাজশাহী সাংবাদিক ইউনিয়নের শ্রদ্ধা নিবেদন
রাজশাহী সাংবাদিক ইউনিয়নের শ্রদ্ধা নিবেদন

সাধারণ সম্পাদক তানজিমুল হক, যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক সাইফুর রহমান রকি, সিনিয়র সদস্য রফিকুল ইসলাম, জিয়াউল গণি সেলিম, আজিজুল ইসলাম, তৈয়বুর রহমানসহ অন্যরা উপস্থিত ছিলেন।

রাজশাহী জেলা পরিষদে অমর একুশে পালন
রাজশাহী জেলা পরিষদে যথাযোগ্য মর্যাদায় শহীদ দিবস ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস পালিত হয়েছে। শুক্রবার প্রথম প্রহর শুক্রবার রাত ১২টা ১ মিনিটেই রাজশাহীর কোর্ট শহীদ মিনারে জেলা পরিষদের পক্ষ থেকে পুষ্পস্তবক অর্পণ করে বায়ান্নোর ভাষা আন্দোলনের শহীদদের প্রতি গভীর শ্রদ্ধা জানানো হয়।

রাজশাহী জেলা পরিষদে অমর একুশে পালন
রাজশাহী জেলা পরিষদে অমর একুশে পালন

এ সময় জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান মোহাম্মদ আলী সরকার, প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা মো. আহসান হাবিবসহ পরিষদের সদস্য, সংরক্ষিত নারী ওয়ার্ডের সদস্য এবং কর্মকর্তা-কর্মচারীরা উপস্থিত ছিলেন। এরপর রাতেই নগরীর ল²ীপুর মোড়ে জেলা পরিষদ নির্মিত জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের প্রতিকৃতিতে শ্রদ্ধা নিবেদন করা হয়। এ সময় জাতির পিতাকে স্মরণে এক মিনিট নীরবতা পালন করা হয়।
দিবসটি পালনে শুক্রবার বেলা ১১টায় জেলা পরিষদ কার্যালয়ে আলোচনা সভা ও দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত হয়। সেখানে শহীদ দিবস ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবসের প্রেক্ষাপট নিয়ে বিস্তারিত আলোচনা হয়। এরপর শহীদদের আত্মার শান্তি কামনা এবং দেশ ও জাতির সমৃদ্ধি কামনা করে দোয়া করা হয়। সংবাদ বিজ্ঞপ্তি

এনজিও ফেডারেশন (এফএনবি) রাজশাহীর উদ্যোগে আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা ও শহীদ দিবস ২০২০ উদযাপন
যথাযোগ্য মর্যাদায় এনজিও ফেডারেশন (এফএনবি) রাজশাহীর উদ্যোগে আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা ও শহীদ দিবস ২০২০ উদযাপন করা হয়। রাণীবাজারস্থ অলোকার মোড় চেম্বার অব কমার্স ভবনের সামনে থেকে প্রভাত ফেরী শুরু করে ভূবন মোহন পার্কে গিয়ে স্মৃতি স্তম্ভে শ্রদ্ধাঞ্জলি অর্পন করা হয়। এনজিও ফেডারেশন (এফএনবি) রাজশাহীর উদ্যোগে আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা ও শহীদ দিবস ২০২০ উদযাপন অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন জেলা ব্র্যাক প্রতিনিধি ও এফএনবি রাজশাহী জেলা কমিটির সভাপতি মোঃ মহসিন আলী। আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা ও শহীদ দিবস কর্মসূচীতে রাজশাহী জেলার এফএনবি’র সদস্য সংস্থা হিসেবে অংশগ্রহণ করেন ব্র্যাক, আশা, বুরো বাংলাদেশ, টিএমএসএস, আশ্রয়, নিকুঞ্জ বস্তি উন্নয়ন সংস্থা, পদক্ষেপ মানবিক উন্নয়ন কেন্দ্র, জাগরনী চক্র ফাউন্ডেশন, লেডিস অর্গানাইজেশন ফর সোসাল ওয়েলফেয়ার (লফস), বিডো, বেলা, আরএসডিপি, দিশা, এর নির্বাহী প্রধান ও প্রতিনিধিগন। সংবাদ বিজ্ঞপ্তি

সম্মিলিত সাংস্কৃতিক জোট রাজশাহীর অমর একুশের প্রভাতফেরি
সম্মিলিত সাংস্কৃতিক জোট রাজশাহীর অমর একুশের প্রভাতফেরি

ভাষা শহীদদের প্রতি রাসিক পবিরারের শ্রদ্ধা
অমর একুশে ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবসের প্রথম প্রহরে ঐতিহাসিক ভূবনমোহন পার্ক শহীদ মিনারে পুষ্পস্তবক অর্পণ করে ভাষা শহীদদের প্রতি শ্রদ্ধা জানিয়েছেন রাজশাহী সিটি কর্পোরেশনের কাউন্সিলর, কর্মকর্তা ও কর্মচারীবৃন্দ। ২১ ফেব্রুয়ারি দিবসের প্রথম প্রহরে রাত ১২টা ১মিনিটে শ্রদ্ধা নিবেদন করেন তারা। পুষ্পস্তবক অর্পনের পর শহীদদের স্মরণে এক মিনিট নীরবতা পালন করা হয়।
প্রথমে মেয়র ও কাউন্সিলরবৃন্দের পক্ষ থেকে শহীদ মিনারে পুষ্পস্তবক অর্পন করা হয়। এরপর কর্মকর্তাবৃন্দ এবং রাসিক কর্মচারী ইউনিয়নের পক্ষ থেকে পুষ্পস্তবক অর্পন করা হয়।
এ সময় উপস্থিত ছিলেন রাসিকের প্যানেল মেয়র-১ ও ১২নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর সরিফুল ইসলাম বাবু, প্যানেল মেয়র-২ ও ১নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর রজব আলী, প্যানেল মেয়র-৩ তাহেরা খাতুন মিলি, ৭নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর মতিউর রহমান, ১৩নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর আব্দুল মমিন, ১৪নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর আনোয়ার হোসেন, ১৮নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর শহিদুল ইসলাম, ১৯নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর তৌহিদুল হক সুমনসহ অন্যান্য কাউন্সিলরবৃন্দ, প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা ড. এবিএম শরীফ উদ্দিন, সচিব আবু হায়াত মোঃ রহমতুল্লাহ, প্রধান প্রকৌশলী মোঃ আশরাফুল হক, বাজেট কাম হিসাব রক্ষণ কর্মকর্তা শফিকুল ইসলাম খানসহ অন্যান্য কর্মকর্তা-কর্মচারীবৃন্দ।ভাষা শহীদদের প্রতি রাসিক পবিরারের শ্রদ্ধা
এরআগে নগর ভবনের সামনে থেকে শোক র‌্যালি বের করা হয়। র‌্যালিটি শহীদ কামারুজ্জামান চত্বর হয়ে নিউ মাকের্ট এর সামনে দিয়ে ভূবনমোহন পার্কে গিয়ে শেষ হয়।
দিবসটিতে আরো ছিল ২১ ফেব্রুয়ারি সূর্যোদয়ের সাথে সাথে নগরভবনসহ ওয়ার্ড কার্যালয় ও সিটি কর্পোরেশন কর্তৃক নিয়ন্ত্রিত স্থাপনাসমূহে জাতীয় পতাকা অর্ধনমিতভাবে উত্তোলন, মহানগরীর সড়ক দ্বীপসমূহ এবং অন্যান্য গুরুত্বপূর্ণ স্থানসমূহে বাংলা বর্ণমালা সম্বলিত ফেস্টুন দ্বারা সজ্জিতকরণ, বাদ জুম্মা সোনাদীঘিস্থ রাজশাহী সিটি কর্পোরেশন জামে মসজিদে জাতির শান্তি অগ্রগতি ও ভাষা শহীদদের রুহের মাগফিরাত কামনা করে বিশেষ মোনাজাত অনুষ্ঠিত হয়। সংবাদ বিজ্ঞপ্তি

রুয়েটে শহীদ দিবস ও আর্ন্তজাতিক মাতৃভাষা দিবস পালিত
একুশের প্রথম প্রহরে রুয়েট কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারে পুষ্পস্তবক অর্পণ করেন রুয়েট ভাইস-চ্যান্সের প্রফেসর ড. মোঃ রফিকুল ইসলাম সেখ ও ভারপ্রাপ্ত রেজিস্ট্রার প্রফেসর ড. মোঃ সেলিম হোসেন। এসময় আরো উপস্থিত ছিলেন পরিচালক ছাত্রকল্যাণ ও ২১ ফেব্রুয়ারী মহান শহীদ দিবস ও আর্ন্তজাতিক মাতৃভাষা দিবস ২০২০ উদযাপন কমিটির সভাপতি প্রফেসর ড. মোঃ রবিউল আওয়াল, শিক্ষক সমিতির সভাপতি প্রফেসর ড. মোঃ ফারুক হোসেন ও সাধারণ সম্পাদক প্রফেসর ড. মিয়া মোঃ জগলুল সাদত, পুরকৌশল বিভাগের প্রফেসর ড. আব্দুল আলিম, উপ-পরিচালক ছাত্রকল্যাণ মামুনুর রশীদ ও আবু সাঈদ, অফিসার সমিতির সাধারণ সম্পাদক প্রকৌশলী মুফতি মাহমুদ রনি , কর্মচারী সমিতির আহবায়ক কমিটি নেতৃবৃন্দ, রুয়েট ছাত্রলীগের সভাপতি নাঈম রহমান নিবিড় ও সাধারণ সম্পাদক চৌধুরী মাহফুজুর রহমান তপু সহ ডীনবৃন্দ, বিভাগীয় প্রধানবৃন্দ, পরিচালকবৃন্দ, শাখা প্রধানবৃন্দ,শিক্ষক-শিক্ষার্থীবৃন্দ। পরে শহীদদের সম্মানে এক মিনিট নীরবতা পালন করা হয় এবং সম্মিলিতভাবে জাতীয় সঙ্গীত গাওয়া হয়। এরপরই শিক্ষক, কর্মকর্তা ও কর্মচারী সমিতির নেতৃবৃন্দ এবং রুয়েট ছাত্রলীগ, বিভিন্ন হলের প্রভোস্ট, ডিবেটিং ক্লাব, রোবটিক ক্লাব, ক্যারিয়ার ক্লাব, ল্যাঙ্গুয়েজ ক্লাব, কালচারাল ক্লাব, রোবটিক সোসাইটিসহ বিভিন্ন সংগঠনের পক্ষ থেকে শহীদ মিনারে পুষ্পস্তবক অর্পণ করে শহীদদের প্রতি শ্রদ্ধা জানায়।

রুয়েটে শহীদ দিবস ও আর্ন্তজাতিক মাতৃভাষা দিবস পালিত
রুয়েটে শহীদ দিবস ও আর্ন্তজাতিক মাতৃভাষা দিবস পালিত

ভোরে প্রশাসনিক ভবনসহ সকল ভবনে জাতীয় পতাকা অর্ধনমিতভাবে উত্তোলন করা হয়। বাদ আসর কেন্দ্রীয় জামে মসজিদে শহীদদের রুহের মাগফেরাত কামনা করে বিশেষ মোনাজাত ও মিলাদ অনুষ্ঠিত হয়। সংবাদ বিজ্ঞপ্তি

বাগমারা

রাজশাহীর বাগমারায় আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা ও শহীদ দিবস উপলক্ষে ১২ টা ১ মিনিটে উপজেলার কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারে শহীদদের প্রতি শ্রদ্ধা জানিয়ে পুষ্পস্তবক অর্পণ করেন বাগমারা উপজেলা আ’লীগের সভাপতি ও সংসদ সদস্য ইঞ্জিনিয়ার এনামুল হক। ২১ ফেব্রুয়ারির প্রথম প্রহরে উপজেলার কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারে শহীদদের প্রতি শ্রদ্ধা জানিয়ে পুষ্পস্তবক অর্পণ করা হয়েছে।
এছাড়াও শহীদদের প্রতি শ্রদ্ধা নিবেদন করে কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারে প্রষ্পস্তবক অর্পণ করেন উপজেলা প্রশাসন, উপজেলা পরিষদ, বাগমারা থানা, মুক্তিযোদ্ধা কমান্ড, উপজেলা আওয়ামী লীগ, ভবানীগঞ্জ পৌর সভা, বিদ্যুৎ অফিস, যুবলীগ, স্বেচ্ছাসেবকলীগ, ছাত্রলীগ এবং বিভিন্ন রাজনৈতিক সংগঠনের পাশাপাশি শিক্ষা প্রতিষ্ঠান সহ বিভিন্ন শ্রমিক ইউনিয়নের পক্ষ থেকে শহীদ মিনারে পুষ্পস্তবক অর্পণ করা হয়।

 বাগমারায় আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা ও শহীদ দিবস পালিত
বাগমারায় আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা ও শহীদ দিবস পালিত

পুষ্পস্তবক অর্পণ শেষে সকল শহীদদের আত্মার শান্তি কামনায় এক মিনিট নীরবতা পালন এবং দোয়া করা হয়। এ সময় উপস্থিত ছিলেন বাগমারা আসনের সংসদ সদস্য ইঞ্জিনিয়ার এনামুল হক, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা শরিফ আহম্মেদ, উপজেলা চেয়ারম্যান অনিল কুমার সরকার, বাগমারা থানার অফিসার ইনচার্জ আতাউর রহমান, উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) মাহমুদুল হাসান, ভবানীগঞ্জ পৌরসভার মেয়র আব্দুল মালেক মন্ডল, উপজেলা আ’লীগের সহ-সভাপতি মতিউর রহমান টুকু, আফতাব উদ্দীন আবুল, ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক গোলাম সারওয়ার আবুল, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক সিরাজ উদ্দীন সুরুজ, সহ-দপ্তর সম্পাদক নুরুল ইসলাম, উপজেলা কার্যকরী কমিটির সদস্য অধ্যক্ষ হাতেম আলী, হাচেন আলী, জাহাঙ্গীর আলম, উপদেষ্টা সদস্য আবুল কালাম আজাদ, উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান আসাদুজ্জামান আসাদ জেলা আ’লীগের সাবেক সদস্য জাহানারা বেগম, উপজেলা যুবলীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক শামীম মীর, জেলা ছাত্রলীগের সহ-সভাপতি উজ্জল হোসেন, উপজেলা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক জহুরুল ইসলাম, সহ-সভাপতি ইসমাইল হোসেন সান্টু, ছাত্রলীগ নেতা নাইম আদনান, আতাউর রহমান, আব্দুর রউফ প্রমুখ।
এ সময় উপজেলা প্রশাসনের বিভিন্ন দপ্তরের প্রধান, শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের শিক্ষক-শিক্ষার্থী সহ বিভিন্ন এলাকার গন্যমান্য ব্যক্তিবর্গ এবং আ’লীগ ও অংগ সহযোগি সংগঠনের নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন। শুক্রবার সকালে উপজেলা আ’লীগে দলীয় কার্যালয় বঙ্গবন্ধু স্মৃতি জাদুঘর কমপ্লেক্সে জাতীয় ও দলীয় পতাকা অর্ধনমিত এবং শহীদদের স্মরণে কালো পতাকা উত্তোলন করেন আ’লীগ ও অংগ সংগঠনের নেতৃবৃন্দ। বার্তা প্রেরক: সমিত রায়

জয়পুরহাট

জয়পুরহাটে ভাষা শহীদদের প্রতি ছাত্র ইউনিয়নের পুষ্পস্তবক অর্পণ
অমর একুশের প্রথম প্রহরে রাত ১২টা এক মিনিটে জয়পুরহাট কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারে ভাষা শহীদদের প্রতি বিনম্র শ্রদ্ধা জানিয়ে পুষ্পস্তবক অর্পণ করেন বাংলাদেশ ছাত্র ইউনিয়ন, জয়পুরহাট জেলা সংসদের সদস্যরা।
এ সময় উপস্থিত ছিলেন ছাত্র ইউনিয়ন জয়পুরহাট জেলা সংসদের সভাপতি রিফাত আমিন রিয়ন, সহ সভাপতি রমজানুল ইসলাম, সাধারণ সম্পাদক তাসরিন সুলতানা, সহ সাধারণ সম্পাদক তাসমিনা সুলতানা, দপ্তর সম্পাদক সামিয়া আখতার মিমি, স্কুল ছাত্র বিষয়ক সম্পাদক এবং জেলার নেত্রীবৃন্দরা।

 জয়পুরহাটে ভাষা শহীদদের প্রতি ছাত্র ইউনিয়নের পুষ্পস্তবক অর্পণ

জয়পুরহাটে ভাষা শহীদদের প্রতি ছাত্র ইউনিয়নের পুষ্পস্তবক অর্পণ

এরপরে ২১ ফেব্রুয়ারি শহীদ দিবস ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস উপলক্ষে সকাল সাড়ে ৮টায় আলোচনা সভা করে জয়পুরহাট জেলা ছাত্র ইউনিয়ন।
জয়পুরহাট জেলা ছাত্র ইউনিয়ন কার্যালয়ে জেলা সাধারণ সম্পাদক তাসরিন সুলতানার সভাপতিত্বে আলোচনা সভায় বক্তব্য রাখেন, জেলা সভাপতি রিফাত আমিন রিয়ন, সহ সভাপতি রমজানুল ইসলাম, সহ সাধারণ সম্পাদক তাসমিনা সুলতানা, প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক রাসেল হোসেন প্রমুখ।
আলোচনা সভা শেষে শহীদদের স্মরণে ১মিনিট নিরবতা পালন করেন ছাত্র ইউনিয়নের সদস্যরা। বার্তা প্রেরক: রিফাত আমিন রিয়ন

নওগাঁ

 

নওগাঁয় শহীদ ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস পালিত হচ্ছে
নওগাঁয় যথাযোগ্য মর্যাদা ও ভাবগাম্ভির্য্যের মধ্য দিয়ে শহীদ দিবস ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস পালিত হচ্ছে।
দিবসটি উপলক্ষে বিভিন্ন কর্মসূচীর অংশ হিসেবে দিবসের প্রথম প্রহর রাত ১২ টা ১ মিনিটে শহরের মুক্তির মোড় কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারে পুস্পস্তবক অর্পনের মধ্য দিয়ে দিবসের কর্মসূচী শুরু হয়।

নওগাঁ জেলা পুলিশের শ্রদ্ধা নিবেদন
নওগাঁ জেলা পুলিশের শ্রদ্ধা নিবেদন

শহীদ মিনারে পুষ্পমাল্য অর্পন করেন, জেলা প্রশাসক মো: হারুন অর-রশীদ, পুলিশ সুপার প্রকৌশলী আবদুল মান্নান মিয়া বিপিএম, মুক্তিযোদ্ধা সংসদ, পৌর মেয়র আলহাজ্ব নাজমুল হক সনি, জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান এ্যাডঃ একেএম ফজলে রাব্বী বকু, সিভিল সার্জন ডাঃ আশরাফুল ইসলাম, নওগাঁ সদর হাসপাতালের আরএমও ডাঃ মনির আলী আকন্দ, সদর উপজেলা নির্বাহী অফিসার আবদুল্লাহ আল মামুন, চেম্বার অব কমার্স এন্ড ইন্ড্রষ্ট্রির সভাপতি ইকবাল শাহরিয়ার রাসেল, প্রেস ক্লাবের সভাপতি নবির উদ্দীন,

নওগাঁ জেলা প্রশাসনের শ্রদ্ধাঞ্জলী
নওগাঁ জেলা প্রশাসনের শ্রদ্ধাঞ্জলী

জেলা আওয়ামীলীগ, যুবলীগ, ছাত্রলীগ, জেলা বিএনপি, নিরাপদ সড়ক চাই (নিসচা), এডাব, এফএনবি, বিদুৎ উন্নয়ন বোর্ড, নওগাঁ ডিপ্লোমা ইঞ্জিনিয়ার্স ইন্সটিটিউশন, বিএমএ, স্বাধীনতা চিকিৎসক পরিষদ, জেলা কৃষিবিদ ইনসটিটিউশান, গনপূর্ত বিভাগ, এলজিইডি, সড়ক ও জনপথ, বিএমডিএ, নওগাঁ সরকারী কলেজ, বিএমসি সরকারী মহিলা কলেজ, ফয়েজ উদ্দীন মেমোরিয়াল কলেজ, একুশে পরিষদ নওগাঁ, ফায়ার সার্ভিস এন্ড সিভিল ডিফেন্স, শহীদ পরিবার, বিভিন্ন সরকারী-বেসরকারী প্রতিষ্ঠান

নওগাঁ প্রেস ক্লাবের শ্রদ্ধাঞ্জলী
নওগাঁ প্রেস ক্লাবের শ্রদ্ধাঞ্জলী

, সামাজিক, সাংস্কৃতিক ও বিভিন্ন রাজনৈতিক দল ও অঙ্গ ও সহযোগী সংগঠনসহ শহীদদের প্রতি গভীর শ্রদ্ধা জানিয়ে পুষ্পস্তবক অর্পন করেন। বার্তা প্রেরক: কাজী কামাল হোসেন

পোরশা

পোরশায় নানা আয়োজনের মধ্য দিয়ে মাতৃভাষা দিবস উদযাপন
নওগাঁর পোরশায় নানা আয়োজনের মধ্য দিয়ে মাতৃভাষা দিবস/ ২০২০উদযাপন করা হয়েছে।
উপজেলা প্রশাসনের আয়োজনে শুক্রবার দিনভর নানা কর্মসূচীর মধ্য দিয়ে দিবসটি পালন করা হয়।
এর আগে একুশের প্রথম প্রহরে উপজেলা পরিষদ কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারে ফুল দিয়ে ভাষা শহীদদের স্মৃতির প্রতি গভীর শ্রদ্ধা নিবেদন করেন উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান আলহাজ্ব অধ্যক্ষ শাহ্ মঞ্জুর মোর্শেদ চৌধুরী।পোরশায় নানা আয়োজনের মধ্য দিয়ে মাতৃভাষা দিবস উদযাপন
একই সাথে শ্রদ্ধা নিবেদন করেন উপজেলা নির্বাহী অফিসার নাজমুল হামিদ রেজা, সাবেক উপজেলা চেয়ারম্যান আলহাজ্ব মোঃ আনোয়ারুল ইসলাম, শিক্ষা অফিসার ওয়াজেদ আলি মৃধা, অফিসার ইনচার্জ (ওসি) শাহিনুর রহমান শাহিন, ভাইস চেয়ারম্যান কাজিবুল ইসলাম, উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা গোলাম দোস্তদার হোসেন, জনতা ব্যাংক ব্যবস্থাপক মিজানুর রহমান প্রমুখ। পোরশায় নানা আয়োজনের মধ্য দিয়ে মাতৃভাষাপোরশায় নানা আয়োজনের মধ্য দিয়ে মাতৃভাষা দিবস উদযাপন দিবস উদযাপনপোরশায় নানা আয়োজনের মধ্য দিয়ে মাতৃভাষা দিবস উদযাপন
এসময় পুষ্পস্তবক অর্পন শেষে শহীদদের বিদেহী আত্নার মাগফিরাত কামনা করে দোয়া পরিচালনা করা হয়।।
সকাল ৮ ঘটিকায় একটি র‍্যালি/প্রভাতফেরি শহীদ পিংকু উচ্চ বিদ্যালয় মাঠ হতে উপজেলা পরিষদ কেন্দ্রীয় শহীদ মিনার প্রদক্ষিণ করে এবং ভাষার মাসের প্রতি গুরুত্ব দিয়ে দিকনির্দেশনামূলক বক্তব্য রাখেন বক্তারা।
পরে সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান এবং চিত্রাংকন, উপস্থিত বক্তৃতা ও বিতর্ক প্রতিযোগিতার পুরস্কার বিতরন করা হয়। বার্তা প্রেরক: সালাউদ্দিন

রাণীনগর

রাণীনগরে শহীদ দিবস ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস পালিত
নওগাঁর রাণীনগরে যথাযোগ্য মর্যাদায় শহীদ দিবস ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস পালন করা হয়েছে। দিবস উপলক্ষে উপজেলা প্রশাসন নানা কর্মসূচির আয়োজন করে। বৃহস্পতিবার দিবাগত রাত ১২.১মিনিটে শহীদ মিনারে শহীদদের স্মরনে পুষ্পমাল্য অর্পণ করা হয়।
শুক্রবার সকালে দিবস উপলক্ষে রাণীনগর বালিকা উচ্চ বিদ্যালয় প্রাঙ্গণ থেকে এক বর্ণাঢ্য প্রভাত ফেরি র‌্যালি বের করা হয়। র‌্যালিটি উপজেলার প্রধান প্রধান স্থান প্রদক্ষিণ শেষে উপজেলা পরিষদ কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারে এসে শেষ হয়। র‌্যালি শেষে আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়।রাণীনগরে শহীদ দিবস ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস পালিত
আলোচনা সভায় উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা আল মামুনের সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন নওগাঁ-৬ (রাণীনগর-আত্রাই) আসনের সংসদ সদস্য ও জেলা আওয়ামীলীগের যুগ্ম সাধারন সম্পাদক মো: ইসরাফিল আলম। এছাড়াও উপস্থিত ছিলেন উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান আলহাজ্ব আনোয়ার হোসেন হেলাল, উপজেলা আওয়ামীলীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা আব্দুল রউফ দুলু, উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা শহীদুল ইসলাম, সাবেক মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার এ্যাড. ইসমাইল হোসেন, রাণীনগর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মো: জহুরুল হক, স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান আসাদুজ্জামান পিন্টু প্রমুখ। র‌্যালিতে উপজেলা প্রশাসনের বিভিন্ন দপ্তর, কর্মকর্তা-কর্মচারী, বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের শিক্ষার্থী ও স্থানীয় গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গরা অংশগ্রহণ করেন। পরে শহীদ মিনার প্রাঙ্গনে উপজেলা শিল্পকলা একাডেমীর নিয়মিত শিল্পীদের অংশগ্রহণে এক মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হয়।
এছাড়াও উপজেলার বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে শহীদ দিবস ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস পালন করেন। বার্তা প্রেরক: কাজী আনিছুর রহমান

নাটোর

ভাষা শহীদদের ঋণ শোধ করতে হবে দেশকে ভালোবেসে -পলক
তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক বলেছেন, ভাষা আন্দোলন, মহান স্বাধীনতা সংগ্রামসহ প্রতিটি গণআন্দোলনের ছিলো বাংলা, বাঙ্গালী ও বাংলাদেশের অস্তিত্বের প্রশ্নে। বাঙ্গালীর
রক্তস্নাত আত্নত্যাগের পথ পাড়ি দিয়ে জাতীয় জীবনে অর্জিত মাতৃভাষা ও স্বাধীনতা সংগ্রামী ভাষা শহীদদের ঋণ শোধ করতে হবে। আরেকটি মুক্তিযুদ্ধ বা ভাষা আন্দোলন সংঘটিত না হলেও দেশকে ভালোবাসার মধ্য দিয়ে এই নতুন প্রজন্মকে শহীদদের ঋণ শোধ করতে হবে।ভাষা শহীদদের ঋণ শোধ করতে হবে দেশকে ভালোবেসে -পলক
শুক্রবার(২১শে ফেব্রুয়ারী) সকালে সিংড়া উপজেলার কোর্ট মাঠে মহান শহীদ দিবস ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস উপলক্ষ্যে উপজেলা প্রশাসনের বিভিন্ন সরকারী দপ্তরের প্রধানদের শপথবাক্য পাঠ করানো শেষে এসব কথা বলেন তিনি।
প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক বলেন, ১৯৭৫ এর ১৫ই আগস্ট জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে সপরিবারে হত্যার মধ্য দিয়ে মুক্তিযুদ্ধের সঠিক ইতিহাসকে আড়াল করে রাখা হয়। স্বাধীনতা বিরোধী মৌলবাদী অপশক্তি দেশের রাজনীতিতে অভিষিক্ত হয় এবং পরবর্তী সরকারগুলোতে বিলীন হয় যায়। গভীর ষড়যন্ত্রের অংশ হিসেবে তারা মুক্তিযুদ্ধসহ বাঙ্গালীর গণআন্দোলনের প্রকৃত ইতিহাসকে আড়াল করে কয়েক প্রজন্মকে বিভ্রান্ত করে। ২০০৮ সালে আওয়ামীলীগ রাষ্ট্র ক্ষমা গ্রহণের পর থেকে বিকৃত ইতাহাসের কলঙ্কমোচন করে সঠিক ইতিহাস তুলে ধরে।
প্রতিমন্ত্রী আরও বলেন, আমরা অনেক চড়াই-উৎরাই পেরিয়েছি। অনেক অপশক্তির চোখ রাঙ্গানো সহ্য করেই এগিয়ে যাচ্ছি। আমরা দেশের মানুষকে উন্নত জীবন দিতে চাই। আমরা চাই প্রতিটি মানুষ তার ন্যুনতম মৌলিক অধিকার থেকে যেন বঞ্চিত না হয়। এ লক্ষ্যে আমরা কাজ করছি।
প্রশাসনিক কর্মকর্তাদের উদ্দেশ্যে প্রতিমন্ত্রী বলেন, মুজিববর্ষ ও স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তীতে আমরা দেশবাসীকে আরও বেশি সেবা দিতে চাই। এজন্য প্রতিটি সরকারী দপ্তরের কর্মকর্তা কর্মচারীদের নিরলসভাবে সেবার মানসিকতা নিয়ে কাজ করতে হবে। কাজকে নিজের কর্তব্য মনে করতে হবে। দেশের প্রতিটি মানুষকে কাঙ্খিত সেবা পৌঁছে দেয়ার মাধ্যমে মুজিববর্ষে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে শ্রদ্ধা জানানো হবে।
উক্ত অনুষ্ঠানে সিংড়া উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা নাসরিন আক্তার বানুর নেতৃত্বে উপজেলা প্রশাসনের ১৭টি দপ্তরের প্রধানগণকে শপথ পাঠ করান প্রতিমন্ত্রী।
এসময় উপস্থিত ছিলেন, সিংড়া পৌরসভার মেয়র আলহাজ্ব জান্নাতুল ফেরদৌস, সিংড়া থানার অফিসার ইনচার্জ নুর এ আলম সিদ্দীকি সহ বিভিন্ন সরকারী কর্মকর্তাবৃন্দ। বার্তা প্রেরক: সামাউন আলী

বরেন্দ্র বার্তা/অপস

Close