মহানগর

রাসিকের বিশেষ সাধারণ সভা অনুষ্ঠিত

সংবাদ বিজ্ঞপ্তি: রাজশাহী সিটি কর্পোরেশনের বিশেষ সাধারণ সভা অনুষ্ঠিত হয়েছেন। বুধবার সকালে নগর ভবন সিটি হল সভা কক্ষে রাজশাহী সিটি কর্পোরেশনের মেয়র এ.এইচ.এম খায়রুজ্জামান লিটন এর সভাপতিত্বে এ সভা অনুষ্ঠিত হয়।
সভায় আগামী ১৭ই মার্চ জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান এঁর জন্মশতবার্ষিকী সীমিত পরিসরে উদ্যাপন, করোনা ভাইরাস নিয়ে আতঙ্কিত না হয়ে সতর্ক থাকার বিষয়ে আলোচনা ও রাজশাহী সিটি কর্পোরেশনের করণীয় বিষয়ে সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়। এছাড়াও পরিস্কার পরিচ্ছন্নতা কার্যক্রম জোরদারকরণ, মশক নিধনে কার্যকর ভূমিকা রাখার বিষয়ে আলোচনা ও সিদ্ধান্ত গ্রহণ করা হয়।
সভায় সভাপতির বক্তব্যে মেয়র বলেন, ১৭ই মার্চ জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকী উদযাপন অনুষ্ঠান রাজশাহীতেও বড় পরিসরে আয়োজনের কথা ছিল। কিন্তু করোনা ভাইরাসের কারণে কেন্দ্রীয় মূল অনুষ্ঠান স্থগিত হয়েছে এবং জনসমাগম কম হয় এমন অনুষ্ঠান আয়োজনের নির্দেশনা এসেছে। এজন্য রাজশাহী সিটি কর্পোরেশনের কর্মসূচিতে পরিবর্তন আনা হয়েছে। ১৭ই মার্চ সকালে জাতীয় পতাকা উত্তোলন, নগর ভবনে বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে শ্রদ্ধা নিবেদন, সকল মসজিদ মন্দির,গির্জাসহ সকল ধর্মীয় প্রতিষ্ঠানে বিশেষ মোনাজাত ও প্রার্থনা এবং প্রধানমন্ত্রী কর্তৃক কেন্দ্রীয়ভাবে আয়োজিত অনুষ্ঠান নগর ভবনের সিটি হলরুমে সরাসরি সম্প্রচারের ব্যবস্থা করা হবে। বিশাল বর্ণাঢ্য র‌্যালি, বিস্তর পরিসরে আলোকসজ্জা, সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান, আতশবাজি, চিত্রাঙ্কন প্রতিযোগিতাসহ বিভিন্ন অনুষ্ঠান স্থগিত করা হয়েছে।
নোভেল করোনা ভাইরাসে আতঙ্কিত না হয়ে সবাইকে সতর্ক হওয়ার আহ্বান জানিয়ে মেয়র বলেন, যেহেতু করোনা ভাইরাসের এখন পর্যন্ত কোন প্রতিষেধক তৈরি হয়নি, সেজন্য এটি প্রতিরোধে জনসচেতনার বিকল্প নেই। জনসচেতনতা সৃষ্টিতে লিফলেট বিতরণ, স্বাস্থ্যকর্মীদের মাধ্যমে বাড়ি বাড়ি গিয়ে সচেতনতা সৃষ্টির উদ্যোগ গ্রহণ করা হয়েছে। সবাইকে করোনা ভাইরাসে আতঙ্কিত না হয়ে সচেতন ও সতর্ক হতে হবে।
সভায় মেয়র পরিস্কার-পরিচ্ছন্নতা, মশক নিধন কার্যক্রম আরো জোরদারকণ এবং ওয়ার্ড সচিবদের যথাযথভাবে দায়িত্ব পালনের নির্দেশনা প্রদান করেন।
সভায় বর্জ্য ব্যবস্থাপনার বিষয়ে প্রেজেন্ট্রেশন দেন রাসিকের প্রধান পরিচ্ছন্ন কর্মকর্তা শেখ মোঃ মামুন ডলার। সভায় উপস্থিত ছিলেন রাসিকের প্যানেল মেয়র-১ ও ১২নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর সরিফুল ইসলাম বাবু, প্যানেল মেয়র-২ ও ১নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর রজব আলী, প্যানেল মেয়র-৩ তাহেরা খাতুন মিলি, সাবেক ভারপাপ্ত মেয়র ও ৯নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর রেজাউন নবী, সাবেক দায়িত্বপ্রাপ্ত মেয়র ও ২১নং ওয়ার্ড নিযাম উল আযিমসহ অন্যান্য কাউন্সিলরবৃন্দ, প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা ড. এবিএম শরীফ উদ্দিন, সচিব আবু হায়াত মোঃ রহমতুল্লাহ, প্রধান প্রকৌশলী মোঃ আশরাফুল হক, মাননীয় মেয়র‘র একান্ত সচিব মোঃ আলমগীর কবির, প্রধান রাজস্ব কর্মকর্তা শাহানা আখতার জাহান, বাজেট কাম হিসাব রক্ষণ কর্মকর্তা শফিকুল ইসলাম খান, প্রধান স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ডা. এফএএম আঞ্জুমান আরা বেগমসহ অন্যান্য কর্মকর্তাবৃন্দ, ওয়ার্ড সচিব ও সুপারভাইজারবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন। বরেন্দ্র বার্তা/অপস

Close