মহানগরশিরোনাম-২

স্বাস্থ্যবিধি মেনে বসছে রাজশাহীর সিটি হাট

নিজস্ব প্রতিবেদক: গত মাসের ২৮ তারিখ বিভিন্ন অনলাইন পত্রিকায় সিটি হাটে স্বাস্থ্যবিধি না মেনে পশু ক্রয় বিক্রয় হচ্ছে মর্মে প্রতিবেদন প্রকাশিত হয়। এই প্রতিবেদন প্রকাশের পর থেকে হাট কর্তৃপক্ষ আরো বেশী করে সজাগ হয়েছেন। আজ বুধবার হাটে তারা কোন ভাবেই মাস্ক ব্যাতিত কাউকে প্রবেশ করতে দিচ্ছেন না। এমনকি হাটে গরু ও মহিষ নিয়ে প্রবেশ করতে গেলেই জীবানুনাশক স্প্রে করে তাদের হাত পরিস্কার করে দিচ্ছেন হাটের স্বেচ্ছাসেবকগণ।
এছাড়াও পুলিশ ও ইজাদারের লোকজনদের গরু মহিষ বিক্রেতাদের স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলতে আহবান জানাতে দেখা যায়। সেইসাাথে পুলিশকে মাইকিং করতে দেখা যায়। এছাড়াও যাদের মাস্ক নেই তাদের মাস্ক কিনে হাটে প্রবেশ করতে বাধ্য করছেন তারা।
স্বাস্থ্যবিধি বিষয়ে হাটের ইজারাদার আতিকুর রহমান কালুর নিকট জানতে চাইলে তিনি বলেন, হাট ইজাদারদের পক্ষ থেকে কঠোর নজরদারী রাখা হচ্ছে। মাস্ক ছাড়া কাউকে হাটে প্রবেশ করতে দেয়া হচ্ছেনা। এছাড়াও সামাজিক দুরত্ব বজায় রাখার জন্য হাটের মধ্যে তাদের শতাধিক স্বেচ্ছাসেবক রয়েছে। তারা এনিয়ে কাজ করছে বলে জানান তিনি। সেইসাথে হাটের প্রধান গেটের সামনে রাখা হয়েছে হাত ধোয়ার জন্য পানি ও সাবান।
এদিকে আরেক ইজাদার স্বপন বলেন, যতদনি করোনা ভাইরাস থাকবে ততািদন পর্যন্ত হাটে এই ব্যবস্থা অব্যাহত থাকবে। তিনি বলেন, এখন প্রতিহাটে প্রায় ২০০০-২৫০০ পশু আমদানী হচ্ছে। কিন্তু করোনার কারনে দুরদুরান্তের ক্রেতারা না আসায় এখনও পশুর হাট জমে উঠেনি। তবে ঈদ যত এগিয়ে আসবে ক্রয় বিক্রয় তত বৃদ্ধি পাবে বলে জানান তিনি।
ঘাটে আসা জনগণের মধ্যে সাইফুল, আপেল, ডেভিড, রুবেল ও বাবুসহ আরো অনেকে হাট কর্তৃপক্ষের এমন কর্মকা-ে অনেক খুশি। তারা নিরাপদে হাােট পশু ক্রয় বিক্রয় করকেত পারছেন বলে জানান তারা।
বরেন্দ্র বার্তা/ফকবা/অপস

Close