মহানগরশিরোনাম

১ মাসে রাজশাহীতে ধর্ষণ-যৌন নির্যাতন ও নির্যাতনের শিকার ২২ নারী

 

সংবাদ বিজ্ঞপ্তি: উন্নয়ন সংস্থা লেডিস অর্গানাইজেশন ফর সোসাল ওয়েলফেয়ার (লফস) অত্র জেলায় দীর্ঘদিন যাবৎ নারী ও শিশুর উন্নয়নে কাজ করছে। মানবাধিকার সংগঠন হিসেবে লফস সংস্থার ডকুমেন্টেশন সেল থেকে রাজশাহীর প্রচারিত দৈনিক পত্রিকার সংবাদের ভিক্তিতে নিয়মিত নারী ও শিশু নির্যাতনের পরিস্থিতি প্রকাশ করে। লফস মনে করে অত্র অঞ্চলে নারী ও শিশু নির্যাতন পরিস্থিতি বিভিন্ন মাত্রায় অবনতি ঘটছে। যৌতুক ও পরকীয়ার কারনে অধিকাংশ নারী ও শিশু নির্যাতনের ঘটনা ঘটছে। অনেক ক্ষেত্রে বিদেশি কিছু টিভি সিরিয়াল পরকিয়াকে উৎসাহিত করছে। এছাড়া পারিবারিক কলহ ও প্রেম ঘটিত কারনে হত্যা-আত্মহত্যা ও অমানবিক নির্যাতনের মতো ঘটনা ঘটছে। বিষয়গুলো কারও জন্য সুখকর নয়। অক্টোম্বর মাসে অমানবিক কিছূ ঘটে যাওয়া ঘটনার চিত্র –
নগরীর দড়িখরবোনা এলাকায় নারীর গোসলের ভিডিও দেখিয়ে প্রতিবেশী নারীকে ব্ল্যাকমেইলের চেষ্টা, বাঘার ধর্ষণের শিকার হয়ে গৃহবধু অন্ত:স্বত্বা, নগরীতে কলেজ পড়ুয়া নারী শিক্ষার্থীকে লাগাতার ধর্ষণের অভিযোগ উঠেছে রাসিক কর্মকর্তার বিরুদ্ধে, তানোর উপজেলার বাতাসপুর গ্রামে গাছের সাথে গলায় শাড়ি পেচিয়ে ফাঁস দিয়ে গৃহবধু ফিরোজা বেগম (২২) আত্মহত্যা, নগরীর মিরের চক এলাকার বাসিন্দা এস এ জীবন নেসা রুকু নিখোঁজ হওয়ার অভিযোগ, নগরীর দামকুড়া থানাধীন আলিমগঞ্জ হলদিবোনা এলাকায় তালাকপ্রাপ্তা স্ত্রী (৫৫) কে ধর্ষণের অভিযোগ, নগরীতে জাল কাগজে বিয়ে করে দিনের পর দিন ধর্ষণ করে এবং সেই আপত্তিকর ছবি তুলে এক ছাত্রীকে ব্ল্যাকমেইলিংয়ের চেষ্টা চালানোর অভিযোগ, বাগমারায় যৌতুকের দাবিতে করে বেবি খাতুন নামের গৃহবধুকে হত্যার অভিযোগ, বাগমারায় বৃদ্ধা মা নুরুন্নাহার বেওয়া (৭০) কে পিটালেন স্কুল শিক্ষক ছেলে, তানোরের মাসিন্দা সইপাড়া গ্রামে স্ত্রী ফাতেমা বিবির (২৩) শরীরের বিভিন্ন স্থানে সিগারেটের ছ্যাকা দিয়ে নির্মম নির্যাতন করার অভিযোগ, তানোরের কৃষ্ণপুর গ্রামে মাদ্রাসার শিক্ষক স্বামীর বিরুদ্ধে গৃহবধু সুলতানা খাতুন তানিয়া(১৯) কে নির্যাতন করে গর্ভের ভ্রুণ নষ্ট করানোর অভিযোগ, নগরীতে যৌতুকের দাবিতে গৃহবধু শিল্পী আক্তার (২৭) কে রাতভর নির্যাতন, পুঠিয়ার গোটিয়ায় মসজিদের মোয়াজ্জিন প্রতারনায় পড়ে প্রেম করে বিয়ে করে যৌতুকের দাবিতে নির্যাতন এবং সন্তান প্রসবের ৭ দিনের মাথায় স্ত্রীকে তালাক, পুঠিয়া পৌরসভার পিরগাছা ৬নং ওয়ার্ডের গলায় ফাঁস দিয়ে সাবিনা বেগম (৩৫) নামের গৃহবধুর আত্মহত্যা, পুঠিয়া উপজেলার বেলপুকুরে যৌতুকের জন্যে মাত্র আটাশ বছর বয়সে বিয়ে করেছেন তিনটি, নির্যাতনে ১ম স্ত্রী আত্মহত্যা করে ২য় স্ত্রীকেও নির্যাতন করে তালাক দেয় এবং ৩য় স্ত্রীকেও নির্যাতন করে তালাক দিয়ে বাড়ি থেকে বের করে দিয়ে প্রান নাসের হুমকি, মোহনপুরে মাদকসেবন করে বাড়ির সামনে এসে াকথ্য ভাষায় গালিগালাজ করে এক গৃহবধুকে মারপিটের অভিযোগ ওই সময় মাকে বাচাতে গিয়ে শ্লীলতাহানির শিকার হন কলেজ ছাত্রী মেয়ে, নগরীতে প্রতিপক্ষের দ্বারা প্রভাবিত হয়ে পুলিশের বিরুদ্ধে মা-মেয়ে আশা খাতুন (২৮) নামের দুই নারীকে মাদকের মামলায় ফাঁসিয়ে দেয়ার অভিযোগ, গোদাগাড়ীর চর আষাড়িয়াদহ ইউনিয়নের চর নওশেরা গ্রামের ১৯ বছরের তরুনীকে প্রেমীকের বিরুদ্ধে অপহরণের মামলা, মোহরপুরে উপজেলায় পূর্ব শত্রুতার জেরে গ্রহবধুকে কুপিয়ে জখম করার অভিযোগ, দুর্গাপুরের ঝালুকা গ্রামে গলায় ফাঁস দিয়ে শিউলী খাতুন (২০) এর আত্মহত্যা, দুর্গাপুর উপজেলায় নাহিদ (১৬) নামের নবম শ্রেণির ছাত্র নিখোঁজ হওয়ার অভিযোগ, একই উপজেলার পাচুবাড়ি গ্রামের প্রতিবন্ধী কিশোরী (১৫) কে ধর্ষণের অভিযোগ, গোদাগাড়ী উপজেলায় দাহ্য পদার্থ ছুড়ে গৃহবধু মাহাবুবা খাতুন (১৫) কে ঝলসে দেওয়ার অভিযোগ, পুঠিয়ায় ধর্ষণের শিকার মানসিক ও শারীরিক প্রতিবন্ধী কিশোরী খালেদা খাতুন (১৫) এক কন্যা সন্তানের জন্ম দিয়েছেন, গোদাগাড়ীতে পারিবারিক কলহের জেরে বিপি হেমব্রম (১৪) নামের আদিবাসী কিশোরী বিষপানে আত্মহত্যার অভিযোগ, তানোরে অষ্টম শ্রেণির ছাত্রী অপহরণের অভিযোগ, নগরীর খড়খড়ি এলাকায় ফাঁকা বাড়িতে ৫ বছরের শিশুকে ধর্ষণের অভিযোগ, তানোরে পাউরুটি কিনে দিয়ে পাঁচ বছরের শিশুকে ধর্ষণের চেষ্টার অভিযোগ, বাঘায় ছাত্রলীগ নেতার বিরুদ্ধে কলেজ ছাত্রীকে (১৮) ধর্ষণের অভিযোগের ঘটনাগুলো সকলের জন্য উদ্বেগজনক। লফস এর নির্বাহী পরিচালক শাহানাজ পারভীন বলেন সংবাদ পত্রে প্রকাশিত ঘটনার বাইরেও অনেক ঘটনা ঘটে যা প্রকাশিত হয় না বা কোন তথ্য জানা যায় না এমন বাস্তবতায়। রাজশাহীতে নারী ও শিশু নির্যাতনের প্রকাশিত তথ্য হতাশাজনক। রাজশাহী অঞ্চলে নারী – শিশু নির্যাতন সহ সার্বিক ঘটনাগুলোর সুষ্ঠ তদন্ত ও দায়ীদের দিষ্টান্তমূলক শাস্তি দাবি করেন। তিনি বলেন অপরাধীদের শাস্তি নিশ্চিত করা না গেলে ক্রমশই অপরাধীরা উৎসাহিত হবে এবং অপরাধের মাত্রা বৃদ্ধি পাবে। লফস সকল নারী-শিশু নির্যাতন ঘটনাগুলোর সুষ্ঠ তদন্ত স্বাপেক্ষে অপরাধীর কঠোর শাস্তির দাবী জানান।

বরেন্দ্র বার্তা/অপস

Close